মুকসুদপুরে ৬ থেকে ৭ হাজার মানুষের যাতায়াতের একমাত্র রাস্তাটি বাঁশের বেড়া দিয়ে বন্ধ করে দিলেন আলবার্ট প্রীতিশ হীরা

  •  
  •  
  •  
  •  

ফকির মিরাজ আলী শেখ বিশেষ প্রতিনিধি:-
গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার জলিরপাড় ইউনিয়নের তালবাড়ী গ্রামের টেকেরহাট গোপালগঞ্জ মহাসড়ক এর তালবাড়ি মেইন রোড় হইতে ওয়াই এম সি সংলগ্ন দিয়ে ফুলকুমারী যাওয়ার ও পায়ে হাঁটা এবং ভ্যান এ যাতায়াতের রাস্তাটি বাঁশের বেড়া দিয়ে আলবার্ট প্রীতিশ হীরা যাতায়ত বন্ধ করে দিলেন,ফুঁসে উঠছেন এলাকাবাসী
উক্ত রাস্তাটির উপর দিয়ে তিনটি গ্রামের প্রায় ছয় থেকে সাত হাজার মানুষের যাতায়াতের একমাত্র সড়ক
উক্ত জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কটি স্থানীয় আলবার্ট প্রীতিশ হীরা (৪০) পিতা মৃত্যু পিলিপ হীরা পুরো সড়কটি বাঁশের বেড়া দিয়ে জনগণের যাতায়েত করার রাস্তাটি একেবারে বন্ধ করে দিয়েছেন
এ বিষয়ে একাদিক বার আলবার্ট প্রীতিশ হীরার সাক্ষাৎকার নেওয়ার জন্য গেলে তাকে তার বাড়িতে পাওয়া যায়নি
রেভারেন্ড রেমন্ড রাজেন বৈরাগী অভিযোগ করে বলেন   প্রীতিশ হীরা উক্ত সড়কটি আমাদের চলাচলের জন্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সরকার একাধিকবার সরকারের অর্থ দিয়ে মাটি ভরাট করে উন্নয়ন করে দিয়েছেন
কিন্তুু আমাদের একমাত্র চলাচলের সড়কটি বন্ধ করে দেওয়ার কারণে আমরা চরম দূর্ভোগে আছি,আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীসহ স্থানীয় এমপি মহোদয়ের সুদৃষ্টি কামনা করছি
অমৃত গাইন বলেন উক্ত সড়কটি বন্ধ করে দিয়ে আমাদের গণতান্ত্রিক ও স্বাধীনতার অধিকারকে হরণ করেছেন আলবার্ট প্রীতিশ হীরা এ বিষয়ে তপন মন্ডল বলেন আমাদের এ রাস্তাটি যদি আলবার্ট হীরা বন্ধ করে রাখেন তাহলে আমরা গ্রাম থেকে কিভাবে বেরোবো আমরা তালবাড়ী বাসি জেলা প্রশাসক মহোদয়ের হস্তক্ষেপ কামনা করছি
বিভা গাইন সাংবাদিকদের জানান আমাদের গ্রামের উক্ত রাস্তাটি জনগুরুত্বপূর্ণ একটি রাস্তা,রাস্তাটিতে আমরা গ্রামবাসী যাতে যাতায়াত না করতে পারি তার জন্য সকল অপ চেষ্টা করে যাচ্ছে একটি কুচক্রী মহল এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উন্নয়নবিরোধী একটি মহল আমি সরকারের কাছে উক্ত কুচক্রী মহলের শাস্তি দাবি করছি।
উক্ত রাস্তাটি বন্ধ করে দেওয়ার বিষয়ে জলিরপাড় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বাবু বিপ্লব মজুমদার এর কাছে জানতে চাইলে সাংবাদিকদের বলেন তালবাড়ির ওই রাস্তাটি আমার জানামতে জনগুরুত্বপূর্ণ একটি রাস্তা যদি কেউ ওই রাস্তাটি বন্ধ করে দেন এবং জনদুর্ভোগ সৃষ্টি করেন আমি জলিরপাড় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের পক্ষে যতটা পারি জনগণের পক্ষে বিষয়টি খতিয়ে দেখব এবং আমার প্রান প্রিয় নেতা আমাদের প্রিয় এমপি  মহোদয়কে বিষয়টি অবগত করব ও আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে উক্ত এলাকার জনগণকে সাথে নিয়ে করবো
জলিরপাড় ইউনিয়ন পরিষদের
চেয়ারম্যান শ্রীমতি বিভারানী মন্ডল বলেন আমি উক্ত বিষয়টি অবগত নই
আমি খোঁজ নিয়ে দেখবো ওখানে কে বা কারা কি করেছে সেটা আমি খতিয়ে দেখব এবং জনস্বার্থে আমি জনগণের পক্ষে কাজ করব।

  •  
  •  
  •  
  •